বা়ংলার প্রথম পূর্ণাঙ্গ ডিজিটাল সাহিত্য পত্রিকা

সম্পাদকীয়

ছুঁয়ে থাকা চাই

বাঙালির মেধা, বুদ্ধি, শিল্প-সাহিত্য-সংস্কৃতির প্রতি তার অনুরাগ ও চর্চা নিজেদের মধ্যে তো বটেই, এই দেশে এবং দেশের বাইরেও আগ্রহের বিষয় হয়ে থেকেছে বহুকাল। রোজকার ডাল-ভাতের জীবনযাপনের ভেতরে, সময়ের অনেক উথালপাথালের ভেতরেও বাঙালি তার ভাবনার পরিসরকে, চিন্তা-চেতনার প্রবাহকে রুদ্ধ করেনি। সেখানেই তার গোত্র আলাদা। শুধু শিল্প-সাহিত্য-সংস্কৃতিই বা কেন। দর্শনে, বিজ্ঞানে, ইতিহাসে অন্য ও অনন্য চিন্তার দিশারী হতে আটকায়নি তার। এইসব পথের পথিক যাঁরা তাঁদের বাঙালি শ্রদ্ধা করেছে, ভালবেসেছে, মনে রেখেছে। কখনও কখনও যে তাতে টোল খায়নি এমন নয়। মরচেও পড়েছে। যদিও তাতে করে ধারাটি যে এখনও বহমান সেকথা অস্বীকার করা যায় না। গড় বাঙালির সবাই যে এই ধারারই শরিক এমন কোনও দাবি নেই। তা হওয়া সম্ভবও নয়। পৃথিবীর অন্য কোনওখানেও এমনটা হয় বলে সাক্ষ্য নেই। তবে বাঙালির যে এক বিশেষ পরিচয় গড়ে উঠেছে মননের অগ্রাধিকারে সেকথাই বা ভোলা যাবে কী করে। সেক্ষেত্রেও সবাই যে বিশিষ্ট হয়ে উঠবেন এমনটা নয়। যাঁরা হয়ে ওঠেন তাঁদের আমরা আরও অনেকের প্রতিনিধির চেহারায় দেখে থাকি।
আরও পড়ুন

প্রবন্ধ

অশিক্ষা দূর হবে কোন শিক্ষায়

শিক্ষা জিনিসটাকে আনন্দময় করে তোলা চাই। যা শেখানো হচ্ছে, জীবনে তাকে প্রত্যক্ষ অভিজ্ঞতা-গোচর করানো চাই। বিজ্ঞানে বা কারিগরি বিভাগে এই জিনিসটা খুব জরুরি।
আরও পড়ুন

বিশেষ রচনা

পূর্বপল্লী ১০৪

একান্ত তিনের শান্তিনিকেতন উপভোগ খুব বেশিদিন চলেনি। যে-সময়ের কথা বলছি তখন বোলপুর-শান্তিনিকেতনে নকশাল ছোঁয়া লাগছে। বোলপুরে সেই দালাল এম্পোরিয়াম সম্মুখীন কাটামুণ্ড ঠিক কবে দেখেছিলাম মনে নেই; ওইরকম সময়েই বোধহয়।
আরও পড়ুন

ধারাবাহিক আত্মকথা

শেষবিকেলে সিমলিপালে পর্ব ১৪

বাবা নেমে এসে আমাদের গাড়ি থেকে রাইফেল, গুলি নিলেন। গাড়ির আড়াল থেকে গুলি করতে গেলেন। পাহাড়ি রাস্তায় গাড়িটা খানিক গড়িয়ে গেল। ফলে বাঘ আর বাবা মুখোমুখি। গাড়ির আড়াল নেই। বাবা তাড়াতাড়ি আড়ালে এলেন।
আরও পড়ুন

শেষবিকেলে সিমলিপালে পর্ব ১৩

চিকন তার মুখটি আমার বুকে রেখে দু’হাতে আমায় জড়িয়ে ধরল। আমিও আশ্লেষে ওকে ডান হাত দিয়ে জড়িয়ে ধরলাম। ওর গ্রীবাতে আমার মুখ নামিয়ে এনে একটি চুমু খেলাম। তাতে চিকন যেন শিহরিত হয়ে উঠল। ভয়ে আর ভাললাগায়।
আরও পড়ুন

ধারাবাহিক উপন্যাস

কুসুমের মধু পর্ব ৬

সে হঠাৎ চুপ করে গেল। বহুদূর থেকে যেন ভেসে এল এক উদাসী মেয়ের মুখ। নীলনয়না সেই মেয়ের ঠোঁট অভিমানে ফুলে রয়েছে। দ্বিজেন্দ্র গুমরে উঠল। কী করছে এখন জেনি? তার সঙ্গে এ জীবনে আর তার দেখা হবে না।
আরও পড়ুন

কুসুমের মধু পর্ব ৫

দ্বিজেন্দ্র চট করে উঠে দাঁড়াল। একটু পরে সে দেখল জেনি আবছা অন্ধকারে মাঠের মধ্যে চুপ করে দাঁড়িয়ে আছে। দ্বিজেন্দ্র পিছনে গিয়ে দাঁড়াতেই জেনি চমকে উঠল। তাকে দেখেই সে তাড়াতাড়ি ফিরতে লাগল। দ্বিজেন্দ্র যেতে দিল না। সে ওর হাত চেপে ধরল।
আরও পড়ুন

রম্যরচনা

জয় বাবা ইনস্টলমেন্টেশ্বর

ঢেঁকি স্বর্গে গেলেও ধান ভানে! পৃথিবীর তাবৎ মেয়ের বাপেরাও এক একটি ঢেঁকি। চুপ করে বসে থাকতে পারে না। দরজায় দরজায় মাথা কুটে মরে, খবর হতে চায়।
আরও পড়ুন

গল্প

কৃষ্ণকালো

সে অবাক হয়ে দেখে, অবিকল শোভনদার চেহারার একজন লোক রিসেপশনিস্ট মহিলার সঙ্গে কথা বলছে। ছ’ফুটের ওপর লম্বা, দোহারা চেহারা, টানা মুখশ্রীর মানুষটির চোখে কালো চশমা, হাতে লাঠি। উনি কি অন্ধ?
আরও পড়ুন

কবিতা

তৃতীয় আয়তনের আলো ও অলোকরঞ্জন

বাঁধা সিলেবাসের সরলীকরণে তিনি কবিতার রসজ্ঞ আস্বাদনকে কখনও অগ্রাহ্য করেননি। পরিবর্তে, কবিতার ওপরে চাপিয়ে দেননি নিজের বিশ্বসাহিত্যের মননক্ষম অহংবোধকে।
আরও পড়ুন

পড়শি দেশের গল্পকথা

গাইয়ে রহস্য

বন্ধুদের কাছে ফিরে আসতেই জবর এবার মুখ খুলল। তারপর? কেমন দেখলি তাকে? গলার আওয়াজের মতোই জবরদস্ত খুবসুরত তো? ওয়ালাজান বিলকুল চুপ কিন্তু তার মুখে তখন ফুটে উঠেছে অবাক করা এক দিলখুশ আমেজ।
আরও পড়ুন

সাক্ষাৎকার

অন্তত আমি শতাব্দীর প্রায়শ্চিত্ত করে যেতে পারছি : সন্দীপ দত্ত

আমি সন্দীপ দত্ত আজ গোটা বাঙালির কাছে আবেদন রাখছি, এই লাইব্রেরিকে বড় করার জন্য এগিয়ে আসুন। আমাদের ১২০০ স্কোয়ার ফুট জায়গা প্রয়োজন। যদি কেউ দেন। আমরা ভাড়া করেও নিতে রাজি আছি।
আরও পড়ুন

ভ্রমণ

কালো মানুষ সাদা কথা পর্ব ১৮

ডামঙ্গা গ্রামে কলের জল নিতে মেয়েদের ভিড়। হলুদ হলুদ প্লাস্টিক জেরিক্যানের লাইন। বহুদূর থেকে আসে জল নিতে। প্লাস্টিক ওদের কাছে ঈশ্বর প্রেরিত। সদিচ্ছায় ওরা আমাদের পরপর পঁচিশটা জেরিক্যানে জল ভরে দিল।
আরও পড়ুন

দু’চাকায় জঙ্গল ও সুবর্ণরেখা

আজন্ম কলকাতায় বড় হওয়া, ফোন না করে আত্মীয়-বন্ধুর বাড়ি না যাওয়া তথাকথিত ‘সভ্য’ মানুষ। অচেনা অজানা এক আদিবাসী পরিবারের কাছ থেকে এই আতিথেয়তা পেয়ে অভিভূত হয়ে বসে রইলাম।
আরও পড়ুন

কালো মানুষ সাদা কথা পর্ব ১৭

ইউএনও-র পরিসংখ্যান বলছে, ১৯৯০ থেকে ২০০৫, এই পনেরো বছরে নাইজেরিয়াতে প্রাচীন রেন ফরেস্টের আশি ভাগ উধাও হয়ে গেছে। জেকিন্স বা গ্যাডসবির মতো সংরক্ষণবাদীরা মনে করেন ক্ষতিপূরণ করা আর কোনওদিন সম্ভব হবে না।
আরও পড়ুন

পিন টু স্পিতি

ভ্রমণের লেখা পড়লে মানসভ্রমণ হয়। তেমনই কোনও বেড়ানোর জায়গায় না গিয়েও তাকে একেবারে চোখের সামনে দেখতে পাওয়া কম আনন্দের নয় নিশ্চয়ই। আর আগে দেখা থাকলেও অন্য চোখে দেখার ভাললাগাই বা কম কী। এই বিভাগে আপনারা দেখতে পাবেন নানা ভ্রমণ এবং ভ্রমণকে বিষয়…
আরও পড়ুন

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

প্রযুক্তি, তক্কো, গপ্পো শেষ পর্ব

অমলকান্তি এখন চায়, পূর্ণাঙ্গ মানুষ হয়ে ওঠার আকাঙ্ক্ষা সকলের মধ্যেই প্রস্ফুটিত হোক। অন্যায়ের বিরুদ্ধে গর্জে ওঠার শক্তি, ভালকে গ্রহণ, খারাপকে বর্জন আর বিপন্নতার প্রকাণ্ড কাণ্ডটিকে সমূলে উৎপাটিত করার প্রকৃত চেতনা সকলের মধ্যেই গড়ে উঠুক।
আরও পড়ুন

প্রযুক্তি, তক্কো, গপ্পো পর্ব ১৭

প্রশ্ন হল বিজ্ঞান, প্রকৌশল, প্রযুক্তিকে কীভাবে কাজে লাগানো যায় হারানো প্রাকৃতিক এবং মানবিক সম্পদ ফিরে পেতে। সে বোঝে, সেক্ষেত্রে উৎপাদন ব্যবস্থাকে হতে হবে প্রকৃতি-কেন্দ্রিক।
আরও পড়ুন

ভিনগ্রহে প্রাণ, মহাকাশে মন্থন

১৯১৭ সালেই প্রথম বিজ্ঞানীদের মনে হয় সৌরমণ্ডলের বাইরেও অনেক গ্রহ রয়েছে। হতেই পারে তাদের কেউ কেউ পৃথিবীরই মতো। ১৯৯২-তে গিয়ে প্রথম এক্সোপ্ল্যানেটের খোঁজ পেলেন তাঁরা।
আরও পড়ুন

পরিবেশ

সোনার চোখ ডলফিনরা বাঁচবে না

গাঙ্গেয় ডলফিনদের চোখ থাকে না। তারা আদতে অন্ধ। কিন্তু আমরা মানুষেরা চক্ষুষ্মান, আমাদের সেই দেখার চোখ গেল কোথায়? ভারতের ‘ন্যাশনাল অ্যাকোয়াটিক অ্যানিম্যাল’-এর এহেন দশা নিয়ে সকলে নির্বাক কেন?
আরও পড়ুন

গঙ্গোত্রী যেমন আছো

এই বিভাগে আপনারা দেখতে পাবেন পরিবেশকে বিষয় করে নির্মিত ছোট ছবি বা শর্টফিল্ম। আমাদের চারপাশের পরিবেশকে আরও নিবিড় করে চেনা ও জানার এবং পরিবেশের সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকার লক্ষ্যেই এই ভাবনা। উষ্ণায়নের ফলে গঙ্গোত্রী হিমবাহ যেভাবে গলে যাচ্ছে তাই নিয়েই…
আরও পড়ুন

বাংলাদেশের হৃদয় হতে

মারুফ রায়হানের দুটি কবিতা

কবিতার মুহূর্ত গুমোট গম্ভীর অন্ধকার। কোথাও আশা নেই, ভালবাসা নেই। তারপরও নক্ষত্রেরা ফুটে উঠতে থাকে আকাশের ক্যানভাসে। আমার কাছে কবিতা এভাবে আসে। এই বাংলায় একটা দোয়েলকে ক্ষতবিক্ষত করে ছুড়ে ফেলা হয় ভাগাড়ে, শীতলক্ষ্যায়, যমুনায়। রূপালি জলের…
আরও পড়ুন

ভোররাতে শুরু হয় অপারেশন

মৃত্যুর সময় একটা কথাও বলতে পারল না সে। বলার মতো অবস্থাও ছিল না। সে মারা গেল অবিনাশের কোলে মাথা রেখে। তার শরীরের কোথাও অখণ্ডতা বলে কিছু ছিল না কিন্তু বুকপকেটে সেই ফটোখানা তেমনই অবিকৃত ছিল। ভাইবোনে তোলা ফটো।
আরও পড়ুন

ব্লগ

প্রতিপ্রস্তাব পর্ব ৯

এমন সৌরালোকিত মৃত্যু যেন প্রতিটি ব্যক্তির ষাট বসন্তের দিনের স্বপ্ন থাকে। আমরা বহু বাসনায় প্রাণপণে চাইছিলাম। তাই কি মারাদোনা বঞ্চনা করে আমাদের জন্য রেখে গেলেন অবাক হওয়ার নিরঙ্কুশ অধিকার আর অবিনশ্বর সেই দশ নম্বর নীল-সাদা অনন্ত!
আরও পড়ুন

চলচ্চিত্র

দুই ভুবনের সৌমিত্র

সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের অভিনয়টা হল সম্পূর্ণ আচরণবাদী। অর্থাৎ, ক্যামেরার সামনে তিনি তাঁর অভিনেয় চরিত্রের মতোই আচরণকে তুলে ধরছেন। চরিত্রের চলাফেরায় কিংবা কথাবার্তায় কোনও বাড়াবাড়ি করছেন না।
আরও পড়ুন

না-নদীর উপকথা

"সুখপাঠ"-এর চলচ্চিত্র বিভাগে সিনেমা নিয়ে সুচিন্তিত প্রবন্ধ পড়ার পাশাপাশি আপনারা দেখতে পাবেন ছোট কাহিনিচিত্র এবং তথ্যচিত্র। এখানে যেসব শর্টফিল্ম বা ডকুমেন্টারি ফিল্ম দেখা যাবে তা সচরাচর অন্যত্র দেখার সুযোগ কম। এবারের ছবিতে এক নদীকে নিয়ে…
আরও পড়ুন

সঙ্গীত

কবি ও কবিগান

দেশবিভাগের ফলে সেই সহজাত সুন্দর আনন্দবর্ধক সংস্কৃতির মূল স্রোতটির গতিবেগ আজ স্লথ। তবে প্রবাহ এখনও চলছে। কিন্তু একেবারে হারিয়ে গেলে আমাদের জীবন হয়ে পড়তে পারে তেল-সলতেবিহীন প্রদীপের মতোই মূল্যহীন।
আরও পড়ুন

নাটক

সংলাপের সুর

রবীন্দ্রনাথের প্রসঙ্গ নিয়ে এলেই সমুদ্রের বর্ণনা দেবার মতো এক অক্ষমতার উপলব্ধি হয়। কিন্তু শুধু এইটুকুও তো বলা যায়, ‘ডাকঘর’ বা ‘রক্তকরবী’, কোন পারিজাত-সুগন্ধে আজও আকৃষ্ট করে। নেহাত ‘সাধারণ’ একটি সংলাপ ভাবনার একেবারে গভীরে নিয়ে যায়।
আরও পড়ুন

ফিরে পড়া

অন্তর বাহির

যে ছবি হয়ে গেছে তাকে আবার এঁকে কি লাভ, জানালা দিয়ে দিনরাত চোখে পড়ছে যে আকাশ ও মাঠ ঘর বাড়ি সেটার সঠিক প্রতিচ্ছবি কি দরকার মানুষের, যদি না সে স্মৃতির সঙ্গে কল্পনাকে এক করে’ দেখায়!
আরও পড়ুন

বইপত্র

একটি মনোলগ

নব্বই দশকের অন্যতম উল্লেখযোগ্য প্রধান কবি। তাঁর নতুন কবিতাবই ‘দৃশ্য’-র কবিতাগুলির আলাদা কোনও নাম রাখলেন না। স্রেফ সংখ্যা দিয়ে পদগুলিকে চিহ্নিত করলেন। ‘পদ’ শব্দটিকে সচেতনভাবেই ব্যবহার করছি।
আরও পড়ুন

হিমেল দুপুরে ভুটানের অজানা গল্প

ভারত, চিন ও ভুটান সীমান্তে ডোকলাম মালভূমিকে নিজের বলে দাবি করে ভুটান। ভারত মেনে নিয়েছে। চিন নয়। ফলে চিনের আঁচড় শুধু ভারতেই নয়, ভুটানের গায়েও। পরিস্থিতি থমথমে হয়ে রয়েছে এখনও। এই অবস্থায় বন্ধু পড়শি দেশ ভুটানের সঙ্গে একটু চেনা-জানা দরকারিও…
আরও পড়ুন

লোকায়ত

লোকনাটক : ললিতা শবর পালা

বাংলার পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা (ঝাড়গ্রাম-সহ) এবং ওড়িশার বালেশ্বর ও ময়ূরভঞ্জ জেলায় এই ললিতা শবর পালাটি একসময় বহুল প্রচলিত ছিল। কয়েকশো বছর ধরে এইসব অঞ্চলের মানুষদের বিনোদনের অন্যতম মাধ্যম ছিল পালাটি।
আরও পড়ুন